নারায়ণগঞ্জ৭১: পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষে জেলা পুলিশের সকল ছুটি বন্ধের ঘোষণা দিয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুন অর রশীদ।  বৃহস্পতিবার (৮ আগস্ট) বেলা ১১টায় নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসনের সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারী ফোরাম আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় তিনি এ ঘোষণা দেন।


তিনি বলেন, ঈদে সাধারণ মানুষ যাতে নিরাপদে বাড়ি ফিরতে পারে এবং পরিবার পরিজন নিয়ে স্বস্তির ঈদ উদযাপন করতে পাওে  তাই ঈদুল আযহায় নারায়ণগঞ্জ জেলার সকল পুলিশের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। 

সভায় জেলা প্রশাসক মো. জসীম উদ্দিন সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন জেলার সিভিল সার্জন ইমতিয়াজ আহমেদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক সুবাস চন্দ্র সাহাসহ প্রমুখ।


তিনি বলেন, ঈদকে কেন্দ্র করে সড়ক-মহাসড়কে ও গরুর হাটের নিরাপত্তার জন্য জেলা পুলিশ ১১৪৭ জন পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছে। যানজট নিরসনের জন্য জেলা পুলিশের পাশাপাশি কমিউনিটি পুলিশের ব্যবস্থা করা হয়েছে।  তারা নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। 


এ সময় ‘গরুর হাট নিয়ে কাউকে বিশৃঙ্খলা করতে দিব না’ উল্লেখ করে হারুন অর রশিদ বলেন, বর্তমানে কোরবানী পশুর হাটে নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ নিরলসভাবে কাজ করছে। কেউ গরুর হাটে অরাজকতা করতে পারবে না। 


দরপত্র সিন্ডিকেট বিষয়কে কেন্দ্র করে সদর উপজেলা অফিসে যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে তাতে পুলিশ মামলা নিয়েছে এবং আসামী  গ্রেফতার করেছে।  ইতোমধ্যে সিদ্ধিরগঞ্জ জোর করে কোরবানি পশু নামানোর চেষ্টা করাকে কেন্দ্র  করে মামলা নিয়েছি এবং আসামী  গ্রেফতার করেছি। 


তিনি বলেন, ঈদ জামাতে পূর্বের ন্যায় এবারও কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখা হবে। হকারদেরকে ধন্যবাদ জানাই তারা আমাদেরকে সহাযোগীতা করেছে। তারা সাইনবোর্ড হতে বঙ্গবন্ধু রোড পর্যন্ত ফুটপাতে বসে নাই।