নারায়ণগঞ্জ৭১: শামীম ওসমানের উদ্যোগে নারায়ণগঞ্জে বৃহৎ ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। লাখো জনতা এ ঈদ জামাতে নামাজ আদায় করেন। সকাল ৮টায় ইমাম আব্দুস সালাম এ নামাজের ঈমামতি করেন। মুসলিম উম্মাহর শান্তি কামনায় মোনাজাত করা হয়।

জামাতের আগে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ একেএম শামীম ওসমান কান্নাজড়িত কন্ঠে তার স্বজনদের জন্য দোয়া ভিক্ষা করেছেন। তিনি বলেন, ‘আমি আপনাদের সবার কাছে ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি। এখানে অনেকেরই মা নাই, বাপ নাই। আমি আপনাদের কাছে আমার মা-বাবা-ভাইয়ের জন্য দোয়া ভিক্ষা চাই। আমিও আপনাদের প্রিয়জনদের জন্য দোয়া করি।’ সোমবার  সকালে ইসদাইরে শামসুজ্জোহা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ঈদ জামাত পূর্ব আলোচনা তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, ‘আমার খুব ভয় লাগে বিশ্বাস করেন। আমি আগামীকাল বাঁচবো কিনা আমি জানি না। আমার ভয় হয় আগামীকাল আমি না থাকলে এই জামাত যদি বন্ধ হয়ে যায়! সেজন্য বলেছিলাম, আমরা এতো এতো টাকা খরচ করি আর আমরা বছরে দুইটা ঈদের জামাত করতে পারবো না? কয় টাকা লাগে এই জামাত করতে? হয়তো দেড়-দুই কোটি টাকা লাগে।’

সাংসদ বলেন, ‘আমি পুরাতন জেলা প্রশাসকের বিদায় এবং নতুন জেলা প্রশাসকের দায়িত্ব গ্রহণের দিন অনুরোধ করলাম, এই জামাতের জন্য আপনারা একটা বরাদ্দ রাখেন। যাতে প্রতিবার এর থেকেও আরো বৃহৎ থেকে বৃহত্তর করতে পারি। কিন্তু কষ্টের সাথে বলতে হয় সেখান থেকে কোন উদ্যোগ নেওয়া হয়নি।’

তিনি আরো বলেন, ‘আল্লাহর পথে কাজ করেন। তা না করলে অহমিকা করে লাভ হবে না। কারণ আমরা চিরস্থায়ী না।’